প্রিয় | ইন্টারনেট লাইফ

অনলাইনভিত্তিক শিক্ষা সহজলভ্য করতে বাজেটে মোবাইল ও ইন্টারনেট সেবার ওপর শুল্ক বৃদ্ধির করার যে প্রস্তাব রাখা হয়েছে প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। মঙ্গলবার (২৩ জুন) জাতীয় সংসদে প্রস্তাবিত ২০২০-২১ অর্থবছরের বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এ প্রস্তাব করেন।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণকালে অনলাইন শিক্ষা চলমান থাকার কথা উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, মোবাইল এবং ইন্টারনেট ব্যবহারের ওপর শুল্ক বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে সেটি প্রত্যাহারের জন্য আমি অনুরোধ জানাচ্ছি। কারণ অনলাইন শিক্ষার মাধ্যমে এখন আমাদের শিক্ষার্থীদের কাছে পৌঁছানো বড় উপায়। আর সেটিকে সহজলভ্য করার জন্য এটি অত্যন্ত জরুরি।

প্রসঙ্গত, গত ১১ জুন সংসদে উত্থাপিত ২০২০-২১ অর্থ বছরের বাজেটে মোবাইল সিম বা রিম কার্ড ব্যবহারের মাধ্যমে সেবার বিপরীতে সম্পূরক শুল্ক ১০ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ১৫ শতাংশ নির্ধারণের প্রস্তাব করা হয়েছে। নতুন করহারে মোবাইল সেবার ওপর মূল্য সংযোজন কর (মূসক বা ভ্যাট) ১৫ শতাংশ, সম্পূরক শুল্ক ১৫ শতাংশ ও সারচার্জ ১ শতাংশ। ফলে মোট করভার দাঁড়িয়েছে ৩৩ দশমিক ৫৭ শতাংশ। বিদ্যমান ১০ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক হারে এর পরিমাণ ২৭ দশমিক ২৫ শতাংশ৷ এই ট্যাক্স বৃদ্ধির ফলে ১০০ টাকা রিচার্জে সরকারের কাছে কর হিসেবে যাবে ২৫ টাকার মতো৷ এতদিন তা ২২ টাকার মতো ছিল৷ এর ফলে মোবাইল ফোনে কথা বলা, এসএমএস পাঠানো এবং ডেটা ব্যবহারের খরচও বেড়ে যাবে।



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *